অপশাসন-দুঃশাসনের কারণে সরকার গণবিচ্ছিন্ন হয়ে এখন ক্ষমতা হারানোর ভয়ে বেপরোয়া হয়ে উঠেছে

12:00:00

447 বার পঠিত


অপশাসন-দুঃশাসনের কারণে সরকার গণবিচ্ছিন্ন হয়ে এখন ক্ষমতা হারানোর ভয়ে বেপরোয়া হয়ে উঠেছে

গত রাত ২ টায় খিলক্ষেত পূর্ব থানার জামায়াত কর্মী নাজিম উদ্দীনকে নিজ বাসা থেকে সম্পূর্ণ অন্যায় ও বেআইনীভাবে পুলিশ গ্রেফতার ও এ ঘটনার পরপরই তার মা আনরতি বেগম (৮০) ইন্তিকাল করলেও মানবিক বিবেচনায় তার জানাজায় অংশ নেয়ার সুযোগ না দিয়ে পুলিশ কর্তৃক আদালতে সোপর্দ করার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছেন বাংলাদেশ জামায়াতে ইসলামীর কেন্দ্রীয় নির্বাহী পরিষদ সদস্য ও ঢাকা মহানগরী উত্তরের আমীর মুহাম্মদ সেলিম উদ্দিন এবং কেন্দ্রীয় কর্মপরিষদ সদস্য ও ঢাকা মহানগরী উত্তরের সেক্রেটারি ড. মুহা. রেজাউল করিম।

এক বিবৃতিতে মহানগরী উত্তর নেতৃদ্বয় বলেন, সরকার অপশাসন-দুঃশাসনের কারণে গণবিচ্ছিন্ন হয়ে এখন ক্ষমতা হারানোর ভয়ে বেপরোয়া হয়ে উঠেছে। চরম বৈরি পরিবেশে বিরোধী দল নির্বাচনে অংশ নেয়ার সিদ্ধান্ত নিলেও গণবিরোধী সরকার তাতেও নিজেদের জয় নিয়ে নিশ্চিত হতে পারছে না। তাই প্রতিপক্ষকে ময়দান ছাড়া করার জন্যই বিরোধী দলীয় নেতাকর্মীদের বিরুদ্ধে প্রধানমন্ত্রীর প্রতিশ্রুতি স্বত্ত্বেও গায়েবী মামলা ও গণগ্রেফতার অব্যাহত রেখেছে। এমনকি নির্বাচনী তফসিল ঘোষিত হওয়ার পরও সারাদেশে হাজার হাজার বিরোধী দলীয় নেতাকর্মীদের গ্রেফতার করা হয়েছে এবং এখনও হচ্ছে। সে ধারাবাহিকতায় গতরাত ২ টায় খিলক্ষেত পূর্ব থানার জামায়াতকর্মী নাজিম উদ্দীনকে নিজ বাসা থেকে সম্পূর্ণ অন্যায় ও অযৌক্তিকভাবে গ্রেফতার করা হয়। ছেলে গ্রেফতারের পরক্ষণেই তার মা আনরতি বেগম (৮০) আকস্মিক ইন্তিকাল করেন-ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন। কিন্তু অতীব পরিতাপের বিষয় যে, মানবিক কারণে তাকে তার মায়ের জানাজা ও দাফন অনুষ্ঠানে অংশ নেয়ার সুযোগ না দিয়ে আদালতে সোদর্প করা হয়েছে। যা শুধু অমানবিকই নয় বরং সংবিধান ও আইনের শাসনের মারাত্মক লঙ্ঘন।

নেতৃদ্বয় পুলিশের এই ন্যাক্কারজনক ও বেআইনী আচরণের তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানান এবং একান্ত মানবিক কারণে গ্রেফতারকৃত নাজিমউদ্দীনকে অবিলম্বে নিঃশর্ত মুক্তি দিয়ে মরহুমার জানাজা ও দাফন অনুষ্ঠানে যোগ দেয়ার সুযোগ দেয়ার জোর দাবি জানান।